ইসরায়েলে নিহত ১৫০০ ইহুদি

ইসরায়েলে নিহত ১৫০০ ইহুদি – গত দুইদিন ফিলিস্তিনে হামাসের সাথে ইসরাইলের যুদ্ধের পর আজ তৃতীয় দিন (৯ অক্টোবর ২০২৩)।

আজকে স্বাভাবিকের তুলনায় ফিলিস্তিনের মধ্যে শহীদের সংখ্যা বেশি। ইসরাইলি জায়োনিস্টরা সম্মুখ যুদ্ধে পেরে উঠতে পারছে না দেখে তারা বিমান হামলার পথ বেছে নেয়।

এই যুদ্ধে সবচেয়ে বড় ক্ষয়ক্ষতির শিকার হয়েছে। গাজা শহর। জাতিসংঘের মতে, গত দুইদিন আগে যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে গাজায় ১লাখ ২৩হাজার মানুষ বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

যুদ্ধের পরবর্তী আপডেট জানতে ক্লিক করুন

হামাস ও ইসরায়েলি এই যুদ্ধে এখন পর্যন্ত ৫৭৬ ফিলিস্তিনি শহীদ হয়েছেন। আহত হয়েছে ৩০০০ এর ও বেশি।

হামাস ইসরাইল এই যুদ্ধে এখন পর্যন্ত ইসরায়েলে নিহত ১৫০০ ইহুদি এবং ২২৪৩ জন আহত হয়েছে।

হামাসের একজন সিনিয়র কর্মকর্তা বলেছেন, হামাসের নিকট প্রায় ১ হাজারের বেশি ইসরায়েলি বন্দী রয়েছে।

ইরান ওআইসি বৈঠকের আহবান জানিয়েছে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতা নিয়ে একটি সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য। কিন্তু এটা হবে নাকি এখনো নিশ্চিত নয়।

হামাস বলছে, ইসরাইলের কারাগারে বন্দী থাকা ফিলিস্তিনিদের মুক্তির জন্য তারা বন্দী বিনিময় করতে চায়।

হামাসের সাথে ফাতাহ ও যোগ দেওয়ার ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে।

ফিলিস্তিন

হামাসের মুখপাত্র আবু হামজা বলেছেন, আমাদের সৈন্যদের মধ্যে এমন কেউ নেই যে কাজা নামায পড়ে।  যারা কাযা নামাজ পড়ে, তাদের আমরা দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে লড়াই করার অনুমতি দিই না।  আশা করি, আমরা শীঘ্রই মসজিদ আল আকসায় জামাতের সাথে নামাজ পড়া শুরু করব।”

হামাস প্রধান ইসমাইল হানিয়া বলেছেন, আমরা ইসলামী ইমারাত (আফগানিস্তান) এবং এর ভাইদের সহানুভূতি নিয়ে গর্বিত এবং আমরা অন্যান্য ইসলামী দেশগুলিকে তাদের মুসলিম ভাইদের পাশে দাঁড়াতে আমরা আহ্বান জানাচ্ছি।

গাজা শহরে ইসরায়েলি দখলদারদের বিমান হামলায় চারটির মতো মুসলমানদের ধর্মীয় স্থান মসজিদ ধ্বংস্তুপে পরিণত হয়েছে।

স্বাস্থ্যকর্মীদের মতে, গাজা শহরে ৫৬০ জন শহীদ হয়েছেন। আহত হয়েছে প্রায় ৪০০০ জনেরও বেশি। গতকাল রাতে, ইসরাইলের বোমারু বিমান নিরীহ গাজার অধিবাসীদের উপর বোমাবর্ষণ করেছে।

পুরো শহরটিই ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছে। গাজার একজন অধিবাসী বলেন, আমরা আমাদের ভাগ্যের জন্য অপেক্ষা করছিলাম।

ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে ইসরাইলের আক্রমণে ১৬ জন নিহত হয়েছেন এবং ৮০ জন আহত হয়েছেন।

ইসরাইল এই আক্রমণে ইরানকে দোষারোপ করছিল। ইরান হামাসের এই হামলায় যুক্ত থাকার বিষয়ে অস্বীকার করেছে।

হামাসের সামরিক শাখা আল কাসসাম ব্রিগেট তাদের নতুন অস্ত্র নিয়ে পুনরায় জায়োনিস্ট দখলদারদের উপর ঝাঁপিয়ে পড়েছে।

আল কাসসাম ব্রিগেট কর্তৃক প্রকাশিত ভিডিওতে দেখা গেছে, অস্ত্রটি এয়ার ডিফেন্সের জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে। এটি কাঁধে রেখেই লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত করা হচ্ছে।

গাজা অঞ্চলের দুই নিরীহ শরণার্থী শিবিরে হামলা করেছে জায়োনিস্ট দখলদার ইসরাইলরা। এতে কয়েক ডজন ব্যক্তি আহত হয়েছেন।

গাজা অঞ্চলে বিভিন্ন শরণার্থী ক্যাম্প লক্ষ্য করে ইসরায়েলিদের বিমান হামলা। এতে প্রচুর নিরীহ ফিলিস্তিনি আহত ও নিহত হয়।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন ফিলিস্তিনের জন্য কোনো আর্থিক সাহায্য পাঠানো বন্ধ করেছে। তারা ভেবেছে, মুজাহিদদের না খাইয়ে মারবে।

আল্লাহ যাদেরকে রিযিক দিতে চান, কে তার থেকে রিযিক কেড়ে নিতে পারে? মহান আল্লাহর সমকক্ষ কি কেউ আছে নাকি?

পবিত্র ভূমির যুদ্ধের খবর বাংলায় প্রতিনিয়্যত জানতে চোখ রাখুন টেলিগ্রামে

ইসরাইল

দক্ষিণ ইসরাইলের তিনটি প্রধান এলাকায় হামাসের মুজাহিদদের সাথে ইসরায়েলিদের বন্দুক যুদ্ধ সংগঠিত হয়েছে।

ইসরাইল বলছে, তারা গাজার সীমান্তে ১লাখ সৈন্য জড়ো করার চেষ্টা করছে।

হামাসে হামলার পর থেকেই জায়োনিস্ট গোষ্ঠী ইঁদুরের ন্যায় পালানোর পথ খুঁজছে। অনেকেই তেলআবিব বিমানবন্দরে জড়ো হয়েছে দেশ ছেড়ে পালানোর জন্য।

এছাড়াও এখন  দেশ থেকে পালিয়ে যাচ্ছেন প্রাক্তন ইহুদী প্রধানমন্ত্রী। ইঁদুরেরা তো সেই মুসা আ. এর যামানা থেকেই ভীতু ছিল।

খোদাদ্রোহীতা করে সঙ্গীত উৎসবের আয়োজন করা ২৫০ কে সঙ্গীত উৎসবের মঞ্চ থেকেই জাহান্নামে পাঠিয়েছে হামাস।

ইসরাইল বলছে, তারা গাজার সীমান্তের কিছু অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণ ফিরে পেয়েছে। দখলদার ইসরাইলের প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলছে,

গাজা অঞ্চলে তারা অবরোধ আরোপ করবে। তারা বিদ্যুতের লাইন কেঁটে দিবে। গতকাল ইসরাইলের শহর তেলআবিবের বিদ্যুৎ সিস্টেমকে হ্যাক করে পুরো শহরের বিদ্যুৎ বন্ধ করে দেয় ইয়ামেনের একটি হ্যাকার গ্রুপ।

গাজা অঞ্চলে ইসরাইলিদের বিমান হামলায় তাদেরই চার ইসরাইলী সৈন্য নিহত হয়েছে।

আমেরিকা ইসরাইলের সমর্থনে একাধিক যুদ্ধজাহাজ ও সামরিক বিমান পাঠাচ্ছে। সেগুলোকে তারা অতিরিক্ত জাঁকঝমক তাদের একতরফা ইসরাইলনীতি বুঝাতে চাচ্ছে।

কাসসাম ব্রিগেড শহরের ঘরবাড়িতে হামলার প্রতিশোধ হিসেবে অধিকৃত আসকালান শহরে ৮০টি মিসাইল নিক্ষেপ করেছে।

কাসাম কমান্ডো ইউনিট সাগর জুড়ে জিকিম সামরিক ঘাঁটিতে ঝড় তুলেছে।

আল-কাসাম ব্রিগেড গাজার পূর্বে “ফাজ্জা” শহরে একটি সামরিক সাইটে হামলা করে এবং এতে থাকা সবাইকে হত্যা করে।

হামাসের সামরিক শাখার মুখপাত্র দাবি করেছেন যে গাজা উপত্যকায় আজ রাতে ইসরায়েলি বিমান বাহিনীর হামলায় 4 ইসরায়েলি বন্দী নিহত হয়েছে।

কাসাম বিগ্রেডের বুলেটের গুলিতে বিমান বাহিনীর অর্ধেক সদস্য নিহত হয়েছে।

আল-কাসাম ব্রিগেড ইসরায়েলি সামরিক লক্ষ্যবস্তুতে হামলা করে এরমধ্যে ছিলো, একটি নজরদারি ব্যবস্থা এবং দুটি মারকাভা ট্যাঙ্ক ধ্বংস।

আল-কাসামের  গাজা থেকে ছোড়া রকেট দিয়ে আশকেলনের বিদ্যুৎ কেন্দ্র পুড়িয়ে দিয়েছে।

ইসরায়েলি দখলদার সৈন্যদের একটি নতুন দলকে আল-কাসাম ব্রিগেড বন্দী এবং জিম্মি করেছে।

আজকের যুদ্ধের লাইভ আপডেট জানুন আল জাজিরা থেকে

গাজ্জার জন্য অনুদান

৭ অক্টোবর ২০২৩ তারিখে তুফানুল আকসা যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকেই ফিলিস্তিনের গাজ্জায় অসংখ্য মানুষ আহত ও শহীদ হয়েছে। বহু মানুষ নিজেদের ঘর-বাড়ী হারিয়েছে। এছাড়াও বর্তমানে গাজ্জার ৯৮% মানুষ অনাহারে জীবন-যাপন করছে। গাজ্জার মানুষের এই দুঃসময়ে আমরা যদি তাদের পাশে না দাঁড়াই তাহলে কে দাঁড়াবে?

আর-রিহলাহ ফাউন্ডেশন তুফানুল আকসা যুদ্ধের শুরু থেকেই ফিলিস্তিনের গাজ্জার জন্য ডোনেশন সংগ্রহ করে আসছে। এই মহান কাজে আপনিও আমাদের সাথে যুক্ত হতে পারেন।

অনুদান দিন

Scroll to Top