Category: প্রবন্ধ

রাস্তার নামকরণ

রাস্তার নামকরণ – দৈনন্দিন চলাফেরার জন্য রাস্তা আমাদেরকে ব্যবহার করতেই হয়। রাস্তা ছাড়া একটি সমাজ কল্পনা করা প্রায় অসম্ভব। মানুষ নিজের প্রয়োজনে, অন্যের প্রয়োজনে রাস্তা তৈরি করে। রাস্তা দিয়ে প্রয়োজনীয় মালামাল আনা-নেওয়া করা যায়। নিজেও চলাফেরা করতে সুবিধা হয়। সমাজ, এলাকা বা রাষ্ট্রের সকল রাস্তারই আলাদা আলাদা নাম থাকে। রাস্তার এসব নামকরণগুলো স্থানীয় নাম, বরণীয়

পড়ুন বিস্তারিত»

মুসলমানদের বিরুদ্ধে কাফেরদের ষড়যন্ত্র

মুসলমানদের বিরুদ্ধে কাফেরদের ষড়যন্ত্র – পৃথিবীর পলিসি সিস্টেম সময়ে সময়ে পরিবর্তিত হয়। মানব রচিত আইনগুলো কখনোই আজীবন একই সিস্টেমে চলে না। তাদের আপডেট করা লাগে। কৃত্তিমতা যুক্ত করা লাগে। আরো অনেক ছলছাতুরির আশ্রয় নেওয়া লাগে। গণতন্ত্রের মাধ্যমে খিলাফাহ ধ্বংস করে দেওয়া হলেও কুফফার শক্তির ইচ্ছা শুধু খিলাফাহ ধ্বংস নয়। বরং কাফেররা চায় আরো কিছু। আরো

পড়ুন বিস্তারিত»

মুদ্রাস্ফীতি ২০২৩

মুদ্রা তো আমরা সকলেই চিনি। কারেন্সি বা আমাদের টাকা হলো একটি মুদ্রা। ডলারও একটি মুদ্রা। এগুলোকে কাগুজে মুদ্রা বলা হয়। আমরা আজকে এই টাকা-পয়সার সাথে ২০২৩ সালের মুদ্রাস্ফীতি দেখবো। ২০২৩ সাল অন্য দশটি বছরের মতো হলেও এই বছর বাংলাদেশে মুদ্রাস্ফীতি ঘটেছে অনেক বেশি। প্রায় ২৬% এর কাছাকাছি। আমরা আজকে আমাদের মুদ্রাস্ফীতি হিসাব করবো স্বর্ণের মূল্য

পড়ুন বিস্তারিত»

ইসলামের ইতিহাস বুক রিভিউ

ইসলামের ইতিহাস বুক রিভিউ – ড. মুহাম্মাদ ইবরাহিম আশ-শারিকি এর লিখিত “ইসলামের ইতিহাস (নববী যুগ থেকে বর্তমান)” বইটি পড়া শেষ করলাম আলহামদুলিল্লাহ। বইটা মাকতাবাতুল আসলাফ থেকে প্রকাশিত হয়েছে। সম্পাদনায় ছিলেন শাইখ মিজান হারুন হাফিঃ। আমার পড়া মুসলিম ইতিহাসের মধ্যে এটি প্রথম নয়। পূর্বে ইসমাইল রেহান সাহেবের লিখিত ‘মুসলিম উম্মাহর ইতিহাস’ বইটা পড়েছিলাম। সেটিতে অনেক ব্যাখ্যা

পড়ুন বিস্তারিত»

বুনো উল্লাসে নতুন বছরের বার্তা

বুনো উল্লাসে নতুন বছরের বার্তা – প্রতি বছর ৩১শে ডিসেম্বরের রাত হলো একটি আতঙ্কের নাম। ইংরেজরা এই দেশ থেকে বহু আগে বিতাড়িত হলেও তাদের দোসররা ও আদর্শ বাস্তবায়নকারীরা এদেশে এখনো আছে। সভ্যতার নামে অসভ্যতা আর রুচিশীলতার নামে বিকৃত রুচি বাস্তবায়ন করা হলো তাদের প্রধান কাজ। তাদের নিকট পশ্চিমা সভ্যতা হলো শ্রেষ্ঠ আদর্শ। মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশে

পড়ুন বিস্তারিত»

ফিলিস্তিন ইস্যুতে জাতীয় সেমিনার ও আমাদের করণীয়

ফিলিস্তিন ইস্যুতে জাতীয় সেমিনার – ২৩ ডিসেম্বর ২০২৩ তারিখে বাংলাদেশের সকল ওলামায়ে কেরামকে একত্রিত করে হুরমতে আকসা কনফারেন্সের আয়োজন করে বাংলাদেশের জাতীয় ওলামা মাশায়েখ আইম্মা পরিষদ। আলহামদুলিল্লাহ এই কনফারেন্সে একজন তালিবুল ইলম হিসেবে উপস্থিত হওয়ার সৌভাগ্য হয়েছে। সকাল নয়টা থেকে উক্ত সেমিনার শুরু হওয়ার কথা ছিল। আমি পৌঁছেছিলাম সাড়ে আটটায় হয়তো। তখনই দেখি কনফারেন্স হল

পড়ুন বিস্তারিত»

স্বাধীনতার উল্টো পিঠ

স্বাধীনতার উল্টো পিঠ – স্বাধীনতা শব্দের মধ্যে মিশে আছে মুক্তি, ত্যাগ, সাহসিকতার পরিচয়। স্বাধীনতা তো হাজার বছরের প্রাপ্তি যেন। পৃথিবীব্যাপী যখন পরাধীনতার জয়-জয়কার ছিল, আল্লাহ তখন নবী পাঠিয়ে আমাদেরকে মাখলুকের গোলামী থেকে মুক্তি দিলেন। প্রথম স্বাধীনতা পেলাম আমরা। আবিসিনিয়ার বাদশাহ নবীজির সাহাবীদেরকে জিজ্ঞাসা করেছিল, তোমরা কি বিশ্বাস করো? তখন হযরত জাফর বিন আবি তালিব রা.

পড়ুন বিস্তারিত»

আমেরিকার চোখে মুসলমানদের পার্থক্য

আমেরিকার চোখে মুসলমানদের পার্থক্য – মুসলমানদের হাত ধরে আমেরিকা আবিষ্কারের পরে যখন কলম্বাস আমেরিকায় গিয়ে হত্যাকান্ড ঘটিয়ে ইউরোপে এসে নতুন মহাদেশ আবিষ্কারের ঘোষণা দিল, তখন থেকেই আমেরিকায় আস্তে আস্তে খৃস্টান-ইহুদিরা গিয়ে বসতি স্থাপন শুরু করে। শিল্পবিল্পবের পর ও বিশ্বযুদ্ধের পর আমেরিকা পৃথিবীতে নিজেদের অবস্থান জানান দিতে শুরু করলো। একটা সময় তারা আবিষ্কার করলো, এশিয়া-আফ্রিকা-ইউরোপে স্ব-গৌরবে

পড়ুন বিস্তারিত»

ফিলিস্তিনের রক্তক্ষরণ

ফিলিস্তিনের রক্তক্ষরণ – যুদ্ধেই জন্ম, যুদ্ধেই মৃত্যু! একটি সভ্যতা গড়ে উঠে অনেক ত্যাগ ও মেহনতের ফলে। কিন্তু একটি সভ্যতা ধ্বংস হয় মাত্র কয়েকদিনেই। জায়োনিস্ট ইসরাইলের সাথে ফিলিস্তিনের বর্তমান যুদ্ধকে আমরা অস্বাভাবিক মনে করলেও ইহুদিরা এমন যুদ্ধ আরো বেশি বেশি চায়। গত দুই মাসের যুদ্ধে গাজ্জাবাসীর যতটা ক্ষতি হয়েছে, তাদের মনোবল ততটাই বেড়েছে। বহু শিশু এমন

পড়ুন বিস্তারিত»

আমরা শিক্ষাব্যবস্থায় কাদের অনুসরণ করি?

আমরা শিক্ষাব্যবস্থায় কাদের অনুসরণ করি? – একটি সমাজকে পরিবর্তনের জন্য শিক্ষা হলো মূল হাতিয়ার। প্রাচীনকাল থেকেই মানুষ শিক্ষা অর্জনের মাধ্যমে পৃথিবীকে আরো নতুনভাবে চিনেছে। প্রাচীন লৌহযুগ থেকে শুরু করে বর্তমান পৃথিবী, শিক্ষার মাধ্যমেই মানুষ ধাপে ধাপে আস্তে আস্তে অগ্রসর হয়েছে। একজন সন্তানের জীবনের প্রথম শিক্ষক হলো তার মা-বাবা। এরপর সে নিজের পরিবার থেকে শিখে। সমাজ

পড়ুন বিস্তারিত»

হামাসের নিকট হতে বন্দীদের মুক্তি; এক অকল্পনীয় দৃষ্টান্ত

হামাসের নিকট হতে বন্দীদের মুক্তি – গাজ্জা উপত্যকায় মিসর আর কাতারের মধ্যস্থতায় ৪ দিনের যুদ্ধবিরতিতে বন্দী বিনিময় করা হয় অনেক। বর্তমানে আরো ২ দিন বাড়ানো হয়েছে যুদ্ধবিরতি। এই চুক্তিতে ছিল, হামাস ৫০ জন ইসরাইলি বন্দীকে ছেড়ে দিবে। বিনিময়ে ইসরাইল ১৫০ জন ফিলিস্তিনিকে মুক্ত করে দিবে। পরবর্তীতে হামাস চুক্তির বাহিরেও বেশ কিছু বিদেশী নাগরিককেও মুক্তি দিয়ে

পড়ুন বিস্তারিত»

হৃদয়ে ফিলিস্তিনের ব্যাথা কিভাবে উপশম হবে?

হৃদয়ে ফিলিস্তিনের ব্যাথা কিভাবে উপশম হবে, তা কি আপনার জানা আছে? কিভাবে তাদের অসহায় অবস্থা ভুলতে পারি? কোনো পদ্ধতি কি আছে? আপনি কি কখনো পিতার কাধে সন্তানের লাশ নিজ চোখে দেখেছেন? হয়তো দেখেন নি তেমন একটা। আর দেখলেও খুব কম। কিন্তু আপনার আমার মুসলিম ভাই ফিলিস্তিনিরা এই দৃশ্য প্রতিঘন্টায় দেখছে। প্রতিদিন দেখছে। ছোট ছোট সন্তানদের

পড়ুন বিস্তারিত»

ভবিষ্যতে কি বিষয়ে লেখা চান, এখানে বলতে পারেন

Scroll to Top